অধ্যায়ঃ ৩ – কোষ বিভাজন

SSC / জীববিজ্ঞান

অধ্যায়ঃ ৩ – কোষ বিভাজন

গুরুত্বপূর্ণ বিষয়াদিঃ কোষ বিভাজন, মাইটোসিস, মিয়োসিস

কোষ বিভাজনঃ

প্রতিটি জীবদেহ কোষ দিয়ে তৈরি,এই কোষ বিভাজিত হওয়ার দুটি প্রক্রিয়া রয়েছে।

১.মাইটোসিস কোষ বিভাজন

২.মিয়োসিস কোষ বিভাজন

মাইটোসিস কোষ বিভাজনঃ

প্রকৃত বা সুকেন্দ্রিক কোষ একটি ধারাবাহিক প্রক্রিয়ায় বিভক্ত হয়ে দুটি অপত্য কোষে পরিণত হয়।এক্ষেত্রে নিউক্লিয়াস একবার এবং ক্রোমোকোম দু’বার বিভাজিত হয়।এখানে অপত্য কোষের ক্রোমোজেম সংখ্যা এবং মাতৃকোষের ক্রোমোজোম সংখ্যা সমান থাকে।একে সমীকরণিক বিভাজনও বলা হয়ে থাকে।পর্যায়গুলো হলোঃ

১.প্রোফেজ

২.প্রো-মেটাফেজ

৩.মেটাফেজ

৪.এ্যানাফেজ

৫.টেলোফেজ

মাইটোসিসের গুরুত্বও রয়েছে, অনিয়ন্ত্রিত কোষের ক্ষেত্রে এটি দেখা যায়।

মিয়োসিস কোষ বিভাজনঃ

এখানে নিউক্লিয়াস দু’বার এবং ক্রোমোজোম একবার বিভাজিত হয়।অপত্য কোষের ক্রোমোজোম সংখ্যা মাতৃকোষের ক্রোমোজোম সংখ্যার অর্ধেক হয়ে যায়।তাই একে হ্রাসমূলক বিভাজনও বলা হয়।

মিয়োসিস প্রধানত জীবের জনন কোষ বা গ্যামেট সৃষ্টির সময় জনন মাতৃকোষে ঘটে।

লিখেছেনঃ সোহানা ফেরদৌস
ফার্মেসী বিভাগ, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়

Leave your thought here

Your email address will not be published. Required fields are marked *